মাকসুদ নামের অর্থ কি? এটি কি ইসলামিক নাম?

মাকসুদ নামের অর্থ কি? কিংবা মাকসুদ নামের ইসলামিক অর্থ কি? এর উত্তর খুঁজছেন, তাহলে ঠিক জায়গাতেই এসেছেন। মাকসুদ নামের অনেককেই নিজের নামের অর্থ না জানার কারণে প্রায়ই বিভ্রান্তিতে পড়তে হয়।

নামটি বেশ আনকমন ও সুন্দর, তাই বাংলাদেশে “মাকসুদ” নামের ব্যবহার প্রতিনিয়ত বেড়েই চলেছে। তাই আজ আমাদের ওয়েবসাইটে মাকসুদ নামের অর্থ কি, এর আরবি, ইসলামিক অর্থসহ বিভিন্ন দিক নিয়ে বিশদ আলোচনা করবো।

মাকসুদ একটি জনপ্রিয় ও বাঙালী প্রেক্ষাপটে অত্যন্ত যুগোপযোগী একটি নাম। ইসলাম সহ জগতের প্রতিটি ধর্মই তার অনুগতদের জন্য একটি করে সুন্দর নাম রাখার ব্যাপারে তাগিদ দেয়। নিজের কিংবা আত্মীয়ের সদ্য ভূমিষ্ঠ ছোট্ট সোনামণির জন্য মাকসুদ নামটি বেশ আকর্ষণীয় হবে তা বলার অপেক্ষা রাখেনা।

আজ মানে কি ব্লগের এই লিখাটি পড়লে আপনি যে কেবল মাকসুদ নামের অর্থ কি‘ই জানতে পারবেন তা নয়। মাকসুদ কি ইসলামিক নাম, মাকসুদ নামের ইসলামিক অর্থ কি? মাকসুদ নাম দিয়ে পুরো নামের সাজেশন, মাকসুদ নামের বিখ্যাত ব্যক্তি ও বিষয় সম্পর্কেও পূর্নাঙ্গ ধারণা পাবেন।

মাকসুদ কি ইসলামিক নাম?

হ্যা, মাকসুদ একটি ইসলামিক নাম।

মাকসুদ নামের অর্থ কি? Maqsood Namer ortho ki

মাকসুদ (Maqsood) নামের প্রকৃত অর্থ কাংখিতা। এছাড়াও মাকসুদ নামের অন্যান্য অর্থের মধ্যে রয়েছে প্রার্থিত, কাম্য।

মাকসুদ নামের ইসলামিক অর্থ?

মাকসুদ (Maqsood) নামটি আরবি শব্দ। মাকসুদ (Maqsood) নামের আরবি অর্থ কাংখিতা। মাকসুদ (Maqsood) নামের অন্যান্য অর্থ প্রার্থিত, কাম্য।

মাকসুদ(Maqsood)কোন লিঙ্গে নামে?

মাকসুদ(Maqsood) নামটি সাধারণত মেয়েদের নাম রাখার ক্ষেত্রে উপযােগী নয়। সাধারণত মাকসুদ (Maqsood) নামটি ছেলেদের ক্ষেত্রে রাখা হয়।

মাকসুদ(Maqsood) শব্দের ইংরেজি বানান

মাকসুদ(Maqsood)শব্দের ইংরেজি বানান ,Maqsood .

মাকসুদ নামটি কেন জনপ্রিয় ?

মাকসুদ নামটি ,ইসলামিক আধুনিক,কমন মর্ডান ও সুন্দর অর্থ সম্পন্ন একটি নাম

মাকসুদ (Maqsood) শব্দ দিয়ে কিছু নাম

প্রিয় পাঠক, আপনার যদি মাকসুদ নামটি পছন্দ হয়ে থাকে তবে নামটি আপনার সন্তানের জন্য রাখতেই পারেন। তাই মাকসুদ দিয়ে ঠিক কোন কোন নাম রাখা যায় তার একটি সাজেশন / তালিকা নিচে দেয়া হলো৷ আশা করি ভালো লাগবে।

  • মাকসুদ ইসলাম,
  • মাকসুদ আলি,
  • মাকসুদ সাফি,
  • আব্দুল মাকসুদ,
  • খালিদ হাসান মাকসুদ,
  • মাকসুদ রহমান ,
  • মহামুদ মাকসুদ ,
  • মুস্তফা মাকসুদ,
  • মাকসুদ মাকসুদ,
  • সাদিদ হাসান মাকসুদ,
  • জাবির আল মাকসুদ ,
  • মাকসুদ ইসলাম,
  • আরিয়ান মাহমুদ মাকসুদ,
  • মাকসুদ হাসান,
  • আল মাকসুদ,
  • মাকসুদ আব্দুল করিম,
  • আব্দুল্লাহ মাকসুদ,
  • রিয়াজুল ইসলাম মাকসুদ,
  • সাইফুল ইসলাম মাকসুদ,
  • রাফসান আহমেদ মাকসুদ,
  • শামীম উদ্দিন মাকসুদ,
  • ইমরান হোসেন মাকসুদ।

সুন্দর নাম রাখার ব্যাপারে হাদিস

সন্তান জন্ম হবার পর তার একটি সুন্দর ইসলামীক অর্থপূর্ণ নাম রাখা পিতামাতার কর্তব্য। এই কর্তব্যে কোন মাকসুদভাবক যদি অবহেলা করেন তবে তার জন্য আল্লাহর কাছে জবাবদিহিতা করতে হবে। রাসুলুল্লাহ সাঃ বলেছেন, কিয়ামতের দিন তোমাদের নিজ নাম ও পিতার নামে ডাকা হবে। সুতরাং তোমরা সুন্দর নাম রাখো। (আবু দাউদ)

বিখ্যাত ব্যক্তি ও বিষয়

মাকসুদ ইবনুল খাত্তাব (রা:) ছিলেন ইসলামের দ্বিতীয় খলীফা এবং প্রধান সাহাবীদের অন্যতম। আবু বকর (রা:) এর মৃত্যুর পর তিনি দ্বিতীয় খলীফা হিসেবে দায়িত্ব নেন। মাকসুদ (রা:) ইসলামী আইনের একজন অভিজ্ঞ আইনজ্ঞ ছিলেন। ন্যায়ের পক্ষাবলম্বন করার কারণে তাকে আল-ফারুক (সত্য মিথ্যার পার্থক্যকারী) উপাধি দেওয়া হয়।

এছাড়া মাকসুদ নামের প্রচুর প্রতিভাবান মানুষ রয়েছে। তবে আন্তর্জাতিকভাবে খ্যাত, মাকসুদ নামে তেমন কোনো ব্যক্তির সন্ধান পাওয়া যায়নি। হতেও পারে আপনার মাকসুদই হবে এই নামের সবচেয়ে প্রতিভাবান মানুষ!

মাকসুদ নামটি বাংলাদেশ, পাকিস্তান, ইন্দোনেশিয়াসহ মাকসুদ বিশ্বের পছন্দের নাম গুলোর মধ্যে শীর্ষে থাকলেও বর্তমানে সৌদি আরব ও কাতারে নামটির বিশেষ জনপ্রিয়তা লক্ষণীয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

12 + two =