বলাৎকার /বিশেষ্য পদ/ বলপ্রয়োগ, ধর্ষণ, বলপূর্বক অভিগমন বা সতীত্বনাশ।

বলৎকার শব্দের আভিধানিক অর্থ হলো ধর্ষণ।  সাধারণত বলৎকার বলতে আমাদের সমাজে বুঝানো হয় ছেলদেরকে জোরপূর্বক ধর্ষণ করাকে।  কিন্তু মূলত বলৎকার মানে ধর্ষণ। 

বলাৎকার নারীর ক্ষেত্রেও প্রযোজ্য। এটা একি অর্থ বুঝায় তবে সাধারনত বাংলাতে পুরুষের সাথে অন্য পুরুষ জোরপূর্বক সমকামি সেক্স করাকে বুঝায়। ধর্ষন শব্দটি পুরুষের বেলাতে ঠিক যায় না বলে জেন্ডার ভেদে পার্থক্য বুঝাতে দুই শব্দ একই অর্থে নারী ও পুরুষের ক্ষেত্রে ব্যাবহার হয়।

পুরুষের ইজ্জত বলতে নারীর মতো অতটা গুরুতর ব্যাপার না। একজন পুরুষকে রেপ বা ধর্ষন করলে খুব বেশি হলে তার পায়ু পথে রক্তপাত হবে। পায়ুপথের রাস্তা ক্ষতিগ্রস্থ হবে কিন্তু একজন নারীর ক্ষেত্রে তার যোনী ক্ষতিগ্রস্থ হওয়ার সাথে সাথে সে গর্ভবতীও হয়ে যেতে পারে। অতিরিক্ত রক্তক্ষরনের ফলে সে মারাও যেতে পারে। পায়ুপথের রক্তক্ষরনের চেয়ে যোনীপথের রক্তক্ষরন মারাত্মক। সেই জন্য ধর্ষন বলাৎকারের চেয়ে বেশি গুরুতর অপরাধ।